এবার ফেডারেশনকেই বয়কট করলেন বডিবিল্ডার জাহিদ

ক্রীড়া জগত ব্রেকিং নিউজ

সম্প্রতি বাংলাদেশ বডিবিল্ডিং ফেডারেশনের পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে পুরস্কার নেওয়ার পর তাতে লাথি মেরে বেশ আলোচনার জন্ম দিয়েছেন বডিবিল্ডার জাহিদ হাসান শুভ। ২৩ ডিসেম্বর রাতে জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের শেখ কামাল মিলনায়তনে পুরস্কারে লাথি মারার সেই ভিডিও ভাইরাল হয় সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে। ওই প্রতিযোগিতায় ১১ জন বিচারক প্যানেলের ঘোষিত সিদ্ধান্ত অনুযায়ী রূপা জেতেন জাহিদ হাসান শুভ।

বিষয়টি নিয়ে সামাজিক মাধ্যমে আলোচনা-সমালোচনার ঝড় বইছে রীতিমতো। বাংলাদেশ শরীর গঠন ফেডারেশন এই ঘটনার প্রেক্ষিতে জরুরি সভা আয়োজন করে। সেই সভায় জাহিদ হাসান শুভকে আজীবন বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত এসেছে। ফেডারেশনটি প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এমনটিই জানিয়েছে।

নিষিদ্ধ হলেও দুর্নীতির বিরুদ্ধে লড়াই চালিয়ে যেতে চান বডিবিল্ডার জাহিদ। সোমবার গণমাধ্যমে জাহিদ হাসান শুভ বলেন, ‘চোরদের কাছে ক্ষমা চাওয়া তো দূরের কথা। জুতা পেটা করা উচিত তাদের। ওরা আমাকে কী ব্যান করবে আমি এই ফেডারেশনকে বয়কট করছি।’

তিনি আরও বলেন, ‘আপনারা চুরি করবেন, সেটা ধরিয়ে দিলেই ব্যান করে দিবেন। যা করেছি ঠিকই করেছি। যা করেছি বুঝে শুনেই করেছি। চোরের মুখে লাথি দিয়েছি। দুর্নীতিকে লাথি দিয়েছি। তারা একটা বানোয়াট জাজমেন্টের দ্বারা আমাকে দ্বিতীয় বানিয়েছে। আমার বডি কন্ডিশন হিসেব করা হলে কোনভাবেই সেকেন্ড হওয়ার কথা না। তারা একটা বানোয়াট রেজাল্ট দিয়ে আমাকে সেকেন্ড ঘোষণা করে।’

নিষিদ্ধ হবার আগে শুভ জানিয়েছিলেন, ফেডারেশনের কাছ থেকে ন্যায়বিচার না পেলে মানববন্ধন করবেন তিনি। তিনি বলেছেন, ‘একটা ছেলের ক্যারিয়ার নিয়ে ফেডারেশন খেলতে পারে না। একটা ছেলের লাইফ নিয়ে তারা খেলতে পারে না। আমি প্রয়োজনে মানববন্ধন করবো। আমি ন্যায় চাই। টাকা পয়সা কিছু চাই না। আমি আমার প্রতি ন্যায়বিচার চাই।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *