বছরের শেষ দিনে জাপান সাগরে ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়ল উত্তর কোরিয়া

আন্তর্জাতিক

এ বছরের শেষ দিনে জাপান সাগরের দিকে তিনটি স্বল্প পাল্লার ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়েছে উত্তর কোরিয়া। জাপানের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, স্থানীয় সময় শনিবার সকাল ৮টায় প্রথমটি,৮টা ১৪ মিনিটে দ্বিতীয় এবং এর এক মিনিট পরেই তৃতীয় ক্ষেপণাস্ত্রটি জাপান সাগরে এসে পড়েছে। কাতারভিত্তিক গণমাধ্যম আল-জাজিরা এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

তিনটি ক্ষেপণাস্ত্রই উত্তর কোরিয়ার রাজধানী পিয়ংইয়ংয়ের শহরতলি থেকে ছোড়া হয়েছিল বলে আল জাজিরার প্রতিবেদনে বলা হয়েছে। জাপানের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় বলেছে, ক্ষেপণাস্ত্র তিনটি ১০০ কিলোমিটার ওপর দিয়ে উড়ে আনুমানিক ৩৫০ কিলোমিটার দূরে গিয়ে পড়েছে। 

তিনটি ক্ষেপণাস্ত্রই জাপানের এক্সক্লুসিভ ইকোনমিক জোনের বাইরে জাপান সাগরে বিস্ফোরিত হয়েছে। জাপানের এক্সক্লুসিভ ইকোনমিক জোনটি জাপান সাগরের উপকূলরেখা থেকে প্রায় ৩৭০ কিলোমিটার পর্যন্ত বিস্তৃত। 

প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের বিবৃতিতে বলা হয়েছে, এ অঞ্চলের আশপাশের উড়োজাহাজ ও সামুদ্রিক জাহাজগুলোকে সতর্ক থাকতে বলা হয়েছিল। উত্তর কোরিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র বিস্ফোরিত হওয়ার সময়ে কোনো দুর্ঘটনা ঘটেনি। 

বিবৃতিতে আরও বলা হয়েছে, ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা উত্তর কোরিয়ার নিয়মিত কার্যক্রম হলেও জাপান ও এ অঞ্চলের শান্তি ও নিরাপত্তার জন্য হুমকি। শুধু তাই নয়, এ ধরনের ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের রেজুলেশনকেও লঙ্ঘন করে। 

এ দিকে দক্ষিণ কোরিয়ার যুগ্ম সেনা প্রধানও উত্তর কোরিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র উৎক্ষেপণের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেছেন, ‘দক্ষিণ কোরিয়ার সামরিক বাহিনী পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করছে।’ 

আজকের তিনটি ক্ষেপণাস্ত্রসহ উত্তর কোরিয়া এ বছর ৭০টি ক্ষেপণাস্ত্র উৎক্ষেপণ করেছে। এর মধ্যে ৮টি আন্তঃমহাদেশীয় ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র (আইসিবিএমএস) রয়েছে। উত্তর কোরিয়া বলেছে, যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে দক্ষিণ কোরিয়া সামরিক মহড়া শুরু করার পর তারা প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা আধুনিকীকরণের অংশ হিসেবে এসব ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা চালিয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *