স্বামীকে ধুঁকতে দেখে কেঁদে ফেলেন নাদালের স্ত্রী

ক্রীড়া জগত

টেনিস কোর্টে সময়টা ভালো যাচ্ছিল না রাফায়েল নাদালের। অস্ট্রেলিয়ান ওপেনে শিরোপা ধরে রাখার অভিযানে নামার আগে শেষ সাত ম্যাচের ছয়টিতেই হেরেছিলেন তিনি। এর মধ্যে প্রথম রাউন্ডে পান আত্মবিশ্বাস ফিরে পাওয়া জয়। 

কিন্তু চোটের আঘাতে সেটাকে টেনে নিতে পারলেন না রেকর্ড ২২টি গ্র্যান্ড স্লাম জেতা স্প্যানিশ মহাতারকা। মঙ্গলবার বৃষ্টিস্নাত দিনে যুক্তরাষ্ট্রের ম্যাকেঞ্জি ম্যাক ডোনাল্ডের কাছে সরাসরি ৬-৪, ৬-৪, ৭-৫ গেমে হেরে অস্ট্রেলিয়ান ওপেনের দ্বিতীয় রাউন্ড থেকেই বিদায় নিলেন গতবারের চ্যাম্পিয়ন নাদাল। 

র‌্যাংকিংয়ের ৬৫তম খেলোয়াড়ের কাছে তার এমন প্রতিরোধহীন হার মহাঅঘটন মনে হলেও এতে বড় ভূমিকা আছে চোটের। তবে মাঝপথে চোট বাগড়া দিলেও ম্যাচ শেষ করেন ৩৬ বছর বয়সি নাদাল। 

২০১৬ সালের পর অস্ট্রেলিয়ান ওপেনে এটাই তার সবচেয়ে দ্রুত বিদায়। দ্বিতীয় সেটে নিতম্বে চোট পান নাদাল। ‘মেডিকেল টাইম আউট’ নিয়ে আবার কোর্টে ফিরলেও তার চোখে-মুখে অস্বস্তি ও ব্যথার ছাপ ছিল স্পষ্ট। কোর্টে তাকে ধুঁকতে দেখে গ্যালারিতে কেঁদে ফেলেন নাদালের স্ত্রী মেরি। হারের পর নাদাল জানান মানসিকভাবে তিনি বিধ্বস্ত।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *