ক্যালিফোর্নিয়ায় দুটি নৌকাডুবি, নিহত ৮ 

আন্তর্জাতিক

যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়া উপকূলে দুটি নৌকাডুবির ঘটনায় অন্তত আটজনের মৃত্যু হয়েছে। স্থানীয় ইমার্জেন্সি সার্ভিস জানিয়েছে, রোববার সকালে ক্যালিফোর্নিয়ার সান দিয়াগোর ব্ল্যাকস বিচের কাছে এ দুর্ঘটনা ঘটেছে। ব্রিটিশ গণমাধ্যম বিবিসি আজ সোমবার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

সান দিয়াগো লাইফ গার্ডের প্রধান জেমস গার্টল্যান্ড বলেছেন, দুর্ঘটনার পর নৌকায় থাকা এক ব্যক্তি জরুরি নম্বর ৯১১-এ কল করেছিলেন। তিনি জানিয়েছে, তাঁর নৌকায় আটজন লোক ছিল। অপর একটি নৌকায় আট থেকে দশজন ছিলেন। দুটি নৌকাই ডুবে গেছে।

ব্ল্যাকস বিচের এই রুটকে সামুদ্রিক চোরাচালানের সবচেয়ে খারাপ রুট বলে অভিহিত করেছেন জেমস গার্টল্যান্ড। তিনি বলেছেন, কী কারণে এই নৌকাডুবির ঘটনা ঘটেছে, তা এখনো নিশ্চিতভাবে জানা যায়নি। তবে এই পথে তীব্র স্রোত রয়েছে। সে কারণেও নৌকা দুটি ডুবে যেতে পারে।

উদ্ধারকর্মীরা বলেছেন, নিহতরা সবাই প্রাপ্তবয়স্ক। তবে তাঁদের জাতীয়তা সম্পর্কে এখনো নিশ্চিত হওয়া যায়নি। সেখানে কাউকে জীবিত পাওয়া যায়নি বলেও জানিয়েছেন উদ্ধারকর্মীরা। তাঁরা বলেছেন, সম্ভবত উদ্ধারকর্মীরা পৌঁছার আগেই জীবিতরা সৈকত ছেড়ে চলে গেছেন।

সান দিয়াগো কোস্ট গার্ডের সেক্টর কমান্ডার জেমস স্পিটলার বলেছেন, একটি ছোট নৌকা সমুদ্রতীর থেকে বেশ খানিকটা দূরে ডুবে গেছে, অন্যটি তীরের কাছাকাছি ডুবেছে। ধারণা করা হচ্ছে, মানব পাচারকারীরা নৌকা দুটিতে করে লোক পাচার করছিল।

যুক্তরাষ্ট্র ও মেক্সিকো সীমান্তের কাছাকাছি শহর সান দিয়াগো। যুক্তরাষ্ট্র সরকার অভিবাসীদের আটকাতে এই শহরের দক্ষিণে সমুদ্রের মধ্যে বেড়া তৈরি করেছে। তার পরও এই পথে শ্রমিক ও যৌনকর্মীদের পাচার করে মানব পাচারকারীরা।

সান দিয়াগোর ইউএস বর্ডার টহল কর্মকর্তা এরিক ল্যাভারগেন বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে বলেছেন, গত পাঁচ মাসে এই অঞ্চলে কয়েক শ অভিবাসী পাচারের ঘটনা ঘটেছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *