বাজে আচরণে হালান্ডদের দেড় কোটি টাকা জরিমানা

ক্রীড়া জগত ফুটবল

রোমাঞ্চকর ম্যাচে রেফারি বা ম্যাচ পরিচালকদের সঙ্গে খেলোয়াড়দের বাগ্‌বিতণ্ডার ঘটনা নতুন কিছু নয়। রেফারির কোনো এক ভুল সিদ্ধান্ত ম্যাচের ফলে প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষভাবে প্রভাবিত করে থাকে। তেমনি এক ম্যাচে ম্যানচেস্টার সিটির আর্লিং হালান্ডসহ অন্যান্য ফুটবলার রেফারির সিদ্ধান্তে অসন্তোষ প্রকাশ করেন। এর পরিপ্রেক্ষিতে ম্যান সিটিকে মোটা অঙ্কের টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

গত ৩ ডিসেম্বর প্রিমিয়ার লিগের ম্যাচে মুখোমুখি হয় ম্যান সিটি ও টটেনহাম। ইতিহাদে ৩-৩ গোলে ড্র হওয়া সেই ম্যাচের শেষ মুহূর্তে রেফারি সায়মন হুপারের সিদ্ধান্তে ক্ষুব্ধ হয়ে ঘিরে ধরেন সিটির ফুটবলাররা। এরই পরিপ্রেক্ষিতে গতকাল ফুটবল অ্যাসোসিয়েশন (এফএ) সিটিকে ১ লাখ ২০ হাজার পাউন্ড জরিমানা করেছে। বাংলাদেশি মুদ্রায় তা ১ কোটি ৬৬ লাখ টাকা। এফএ এক বিবৃতিতে বলেছে, ‘ম্যানচেস্টার সিটিকে ১ লাখ ২০ হাজার পাউন্ড জরিমানা করা হয়েছে। রোববার ৩ ডিসেম্বর প্রিমিয়ার লিগে টটেনহাম হটস্পারের বিপক্ষে ম্যাচে রেফারিকে ঘিরে ধরেছিল ম্যানচেস্টার সিটির খেলোয়াড়েরা। ম্যানচেস্টার সিটি স্বীকার করেছে যে ম্যাচের ৯৪ মিনিটে তাদের খেলোয়াড়দের আচরণ নিয়ন্ত্রণ করতে ব্যর্থ হয়েছে। একটি স্বাধীন নিয়ন্ত্রক কমিশন শুনানির ভিত্তিতে এই জরিমানা করেছে।’

প্রিমিয়ার লিগের ম্যাচে গত ৩ ডিসেম্বর নির্ধারিত ৯০ মিনিটে ৩-৩ গোলে সমতা হয় ম্যান সিটি-টটেনহাম ম্যাচ। ৯০ মিনিটে টটেনহামের সমতাসূচক গোল করেন দেয়ান কুলুসেভস্কি। এরপর খেলা যখন অতিরিক্ত সময়ে গড়ায়, তখন ম্যাচ জয়ের সম্ভাবনা তৈরি হয়েছিল ম্যান সিটির। নির্ধারিত সময়ের অতিরিক্ত পাঁচ মিনিটের সময় মাঝমাঠে হালান্ডকে ফাউল করে টটেনহাম। তবে দ্রুতই নিজেকে সামলে ওঠা হালান্ড পাস দিয়েছেন সতীর্থ জ্যাক গ্রিলিশকে। গ্রিলিশ যখন টটেনহামের দুর্গের কাছাকাছি চলে যান, তখন তাঁর সামনে গোলরক্ষক ছাড়া আর কেউ ছিলেন না। সে সময়ই রেফারি হুপার বাঁশি বাজালে ঘিরে ধরেন হালান্ডসহ সিটির বেশ কজন ফুটবলার। প্রতিবাদ করতে গিয়ে হলুদ কার্ড দেখেছেন হালান্ড। ক্ষোভ ঝেরেছেন ম্যাচ শেষেও। সেই ঘটনার ভিডিও সামাজিক মাধ্যমে ছেড়ে ম্যান সিটির এই স্ট্রাইকার গালাগালির ভাষায় ক্যাপশন দিয়েছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *