বৃষ্টিবিঘ্নিত মেলবোর্নে প্রথম দিনে চাপে পাকিস্তান

ক্রিকেট ক্রীড়া জগত

মেলবোর্নে বৃষ্টি যে আসবে, তা আবহাওয়ার পূর্বাভাসে আগেই বলা ছিল। যথারীতি আজ মেলবোর্ন ক্রিকেট গ্রাউন্ডে (এমসিজি) অস্ট্রেলিয়া-পাকিস্তান দ্বিতীয় টেস্টের প্রথম দিনে বাগড়াও দিয়েছে বৃষ্টি। বৃষ্টিবিঘ্নিত প্রথম দিনে পাকিস্তানের ওপর ছড়ি ঘুরিয়েছে অস্ট্রেলিয়া।

টস জিতে এবার ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন পাকিস্তান অধিনায়ক শান মাসুদ। ব্যাটিং করতে নামা অস্ট্রেলিয়ার ওপেনার উসমান খাজা তাঁর জুতায় দুই মেয়ের নাম লিখে খেলতে নেমেছেন। বরাবরের মতো খাজা সংস্করণ বুঝে ব্যাটিং করেন মেলবোর্নে দ্বিতীয় টেস্টে। খাজার মতো টেস্ট মেজাজে ব্যাটিং করতে থাকেন ডেভিড ওয়ার্নার। যদিও সব সংস্করণে আক্রমণাত্মক ব্যাটিং করা ওয়ার্নারের এক রকম অভ্যাস। ধীরস্থির ব্যাটিংয়ে খাজা-ওয়ার্নার অস্ট্রেলিয়াকে দারুণ শুরু এনে দিয়েছেন। ১৬৩ বলে ৯০ রানের উদ্বোধনী জুটি গড়েন। জুটি গড়ার পথেই আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে অস্ট্রেলিয়ার দ্বিতীয় সর্বোচ্চ রানসংগ্রাহক হয়ে গেলেন ওয়ার্নার।

লাঞ্চের আগেই ওয়ার্নারকে ফিরিয়ে অস্ট্রেলিয়ার উদ্বোধনী জুটি ভাঙেন আগা সালমান। ২৮তম ওভারের প্রথম বলে সালমানের করা অনেক বাইরের বল শট করতে যান ওয়ার্নার। আউটসাইড এজ হওয়া বল প্রথম স্লিপে তালুবন্দী করেছেন বাবর আজম। ৮৩ বলে ৩ চারে ৩৩ রান করেন ওয়ার্নার। এরপর ৩ নম্বরে ব্যাটিংয়ে নামেন মারনাস লাবুশেন। তবে ওপেনার খাজার সঙ্গে তাঁর (লাবুশেন) জুটিটা দীর্ঘস্থায়ী হয়নি। ৩৪তম ওভারের প্রথম বলে খাজাকে ফিরিয়েছেন হাসান আলী। ১০১ বলে ৫ চারে ৪২ রান করেন খাজা। ওয়ার্নার-খাজার উইকেট হারানো অস্ট্রেলিয়ার স্কোর হয়ে যায় ৩৩.১ ওভারে ২ উইকেটে ১০৮ রান।

দুই ওপেনারের বিদায়ের পর ৪ নম্বরে ব্যাটিংয়ে নামেন স্টিভ স্মিথ। তবে লাবুশেন-স্মিথের জুটি গড়ার সময়ই বাগড়া দেয় বৃষ্টি। অস্ট্রেলিয়ার স্কোর যখন ৪২.৪ ওভারে ২ উইকেটে ১১৪ রান, তখনই বৃষ্টি হানা দেয়। মেলবোর্নের স্থানীয় সময় তখন দুপুর ২টা ২৩ মিনিট। এরপর খেলা শুরু হয় বিকাল ৫টা ১০ মিনিটে। খেলা শুরুর কিছুক্ষণ পরই স্মিথ পেতে থাকেন ভাগ্যের ছোঁয়া। ৫১তম ওভারের দ্বিতীয় বলে মীর হামজাকে কাভার ড্রাইভ করতে যান স্মিথ। শর্ট কাভারে ডাইভ দিয়েও ক্যাচ তালুবন্দী করতে পারেননি বাবর। এরপর আরও একবার জীবন পেয়েছেন স্মিথ। ৫৫তম ওভারের তৃতীয় বলে অস্ট্রেলিয়ার ব্যাটারের বিপক্ষে শাহিন শাহ আফ্রিদি এলবিডব্লুর আবেদন করলে আম্পায়ার আউট দেন। স্মিথ রিভিউ নিলে দেখা যায়, বল স্টাম্পের ওপর দিয়ে বেরিয়ে গেছে।

বারবার জীবন পাওয়া স্মিথ অবশ্য ইনিংস বেশিক্ষণ বড় করতে পারেননি। ৫৮তম ওভারের পঞ্চম বলে আমির জামালের বল ডিফেন্স করতে যান স্মিথ। স্লিপ এলাকা থেকে জোরালো আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে রিভিউ নেয় পাকিস্তান। রিভিউতে দেখা যায়, স্মিথের ব্যাট ছুঁয়ে বল চলে যায় উইকেটরক্ষক মোহাম্মদ রিজওয়ানের গ্লাভসে। ৭৫ বলে ২ চারে স্মিথ করেন ২৬ রান। অস্ট্রেলিয়ার স্কোর হয়ে যায় ৫৭.৫ ওভারে ৩ উইকেটে ১৫৪ রান। বৃষ্টিবিঘ্নিত প্রথম দিনে খেলা হয়েছে ৬৬ ওভার। বাকি ৪৯ বল নিরাপদে পার করেন লাবুশেন ও ট্রাভিস হেড। ৩ উইকেটে ১৮৭ রানে প্রথম দিনের খেলা শেষ করেছে অস্ট্রেলিয়া। ১২০ বলে ৩ চারে ৪৪ রানে অপরাজিত আছেন লাবুশেন। অন্যদিকে ৫ নম্বরে ব্যাটিংয়ে নামা হেড ১৯ বলে ৯ রানে ব্যাটিং করছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *