গাজীপুরে বেতনের দাবিতে মহাসড়ক অবরোধ করে শ্রমিকদের বিক্ষোভ

বাংলাদেশ

গাজীপুরের টঙ্গীতে বেতনের দাবিতে মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেছেন একটি পোশাক কারখানার শ্রমিকেরা। আজ বৃহস্পতিবার দুপুর পৌনে বারোটার দিকে টঙ্গী ভাদাম এলাকায় ক্রসলাইন নীট ফেব্রিকস লিমিটেড নামের কারখানার ভেতরে শ্রমিকেরা কর্মবিরতি শুরু করেন। পরে তাঁরা ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়ক অবরোধ করেন।

শ্রমিকদের আধা ঘণ্টা ব্যাপী বিক্ষোভ ও অবরোধের সময় ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের উভয় পাশে যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। এতে মহাসড়কে যানজটের সৃষ্টি হয়। পরে পুলিশের অনুরোধে শ্রমিকেরা সড়ক ছেড়ে দেন।

শ্রমিকেরা জানান, ক্রসলাইন নীট ফেব্রিকস লিমিটেড নামের কারখানাটিতে প্রায় পনেরো শ শ্রমিক কাজ করেন। দুইটি ইউনিটে ভাগ করে পরিচালনা করা হয় এটি। গত অক্টোবর ও নভেম্বর মাসের বেতন পরিশোধ করেনি কারখানা কর্তৃপক্ষ। আজ বৃহস্পতিবার সকালে কাজে যোগ দেওয়ার পরে বেতনের দাবিতে কারখানার ভেতর কর্মবিরতি পালন করে ইউনিট ১ এর প্রায় সাত শ শ্রমিক। বেলা বাড়লে বিক্ষুব্ধ শ্রমিকেরা কারখানা থেকে বেরিয়ে কয়েক কিলোমিটার পথ পায়ে হেঁটে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের চেরাগ আলী এলাকায় সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করে। পরে পুলিশ ঘটনাস্থালে পৌঁছে বেতন পাইয়ে দেওয়ার  আশ্বাস দিলে শ্রমিকেরা সড়ক ছেড়ে চলে যায়।

কারখানাটির অপারেটর লায়লা বলেন, ‘আমাদের কারখানায় মাসের হিসাবটা ভিন্ন ভাবে গণনা করা হয়। প্রতি মাসের ২৫ তারিখ থেকে মাসের শুরু হিসেবে গণনা হয়। গত দুই মাস ধরে বেতন পরিশোধ করছে না কারখানা কর্তৃপক্ষ। তাই আজ আমরা কাজ বন্ধ করে মহাসড়কে অবস্থান নিয়ে বিক্ষোভ করি।’

এ বিষয়ে কারখানাটির কর্তৃপক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে কেউ গণমাধ্যমে কথা বলতে রাজি হননি।

গাজীপুর শিল্প পুলিশের সহকারী পুলিশ কমিশনার মোশারফ হোসেন আজকের পত্রিকাকে বলেন, ‘বেতনের দাবিতে শ্রমিকেরা মহাসড়কে বিক্ষোভ করেছে। আমরা কারখানা কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনা করব। শ্রমিকদের সড়ক থেকে সরে যেতে অনুরোধ করলে তাঁরা সড়ক ছেড়ে চলে যান।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *